33th-blog

করোনাকালে ঘরে বসে যেসব অ‍্যাপে মুভি দেখে সময় কাটাতে পারবেন

একসময় আমরা প্রায় সবাই ডাউনলোড করে হার্ডডিস্ক ভরে মুভি সংরক্ষণ করতাম। কেননা তখন আমাদের মুভি দেখার জন্য তেমন কোন স্ট্রিমিং চ্যানেল ছিল না। তবে এখন আর ডাউনলোড করে মুভি দেখার প্রয়োজন পরে না। বর্তমানে স্ট্রিমিং চ্যানেলগুলো বেশ জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে। তাই যখন খুশি তখনই অনলাইনে স্ট্রিমিং করে মুভি বা সিরিজ দেখে নেয়া যায়। স্ট্রিমিং চ্যানেলগুলোর মধ্যে কিছু রয়েছে পেইড। আবার কিছু রয়েছে সম্পূর্ণ ফ্রি। বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে ঘরে বসে সময় কাটাতে এসব স্ট্রিমিং চ্যানেল বা অ‍্যাপগুলো আপনার সহায়ক হতে পারে।

তাই আসুন জেনে নেয়া যাক সে সকল অ্যাপগুলো সম্পর্কে, যেগুলো বর্তমান এ দুর্যোগকালীন পরিস্থিতিতেও আপনাকে কিছুটা হলেও বিনোদন দেবে।

১। নেটফ্লিক্স (Netflix)

কোন মুভি বা সিরিজ দেখবেন বাছাই করতে পারছেন না? এরকম পরিস্থিতিতে আমরা প্রায় সবাই পরে থাকি। সামনে এতো এতো মুভি বা সিরিজের অপশন দেখে খাঁই হারিয়ে ফেলি। তখন বারে বারে প্রতীতি মুভির নাম লিখে গুগল বা ইউটিউবে সার্চ করে মুভির ট্রেইলার দেখে নিতে হয়। তবে আপনার এ ঝামেলা এড়াতে ট্রেইলার দেখে নেয়ার সুবিধা রয়েছে নেটফ্লিক্সে। ফলে আপনার মুভি বা সিরিজ বাছাই করার ঝামেলাও অনেকাংশে কমে যাবে!

বিশ্বে অনলাইন স্ট্রিমিং সেবার মধ্যে সবচেয়ে জনপ্রিয় হলো ‘নেটফ্লিক্স’। বাংলাদেশে ২০১৬ সালের শেষের দিকে নেটফ্লিক্স সার্ভিসটি চালু হয়। যদিও এখন পর্যন্ত দেশে নেটফ্লিক্সের কোনো অফিস নেই। বাংলাদেশ এবং কলকাতার অনেক বাংলা সিনেমা এখানে দেখা যাবে। এছাড়াও রয়েছে জাপানিজ সিরিজ বা অ্যানিমে, কোরিয়ান ড্রামা, আমেরিকান বিভিন্ন এবং সিরিজ। তবে নেটফ্লিক্সের সেবা বিনামূল্যে নেয়া যাবে না। নেটফ্লিক্সের মাসিক স্ট্রিমিং প্যাকেজ তিন রকমের। বেসিক, স্ট্যান্ডার্ড ও প্রিমিয়াম। প্যাকেজের দামের সাথে সেবায় রয়েছে ভিন্নতা। আন্তর্জাতিক ক্রেডিট কার্ড মাস্টার বা ভিসা কার্ডের মাধ্যমে প্যাকেজগুলো কেনা যাবে। ব্রাউজার থেকে ওয়েবসাইটে গিয়ে মুভি দেখা যাবে। আবার মোবাইলে গুগল প্লে স্টোর বা অ্যাপ স্টোর থেকে Netflix অ্যাপ ডাউনলোড করেও আপনি মুভি বা সিরিজ উপভোগ করতে পারবেন।

২। আইফ্লিক্স (iflix)

টেলিকম অপারেটর রবির ভিডিও স্ট্রিমিং সেবার নাম ‘আইফ্লিক্স’। এটি বিনোদনের এক বিশাল ভাণ্ডার। বর্তমান করোনা পরিস্থিতে ঘরে বসেই বিভিন্ন এক্সক্লুসিভ শো, পুরস্কারপ্রাপ্ত টিভি সিরিজ, ব্লকবাস্টার সিনেমা, জনপ্রিয় স্থানীয় ও আঞ্চলিক কনটেন্ট এবং শিশুতোষ অনুষ্ঠান উপভোগ করতে পারবেন এখানে। আইফ্লিক্সে সহজেই আপনি আপনার মন মত কন্টেন্ট খুঁজে পাবেন। লকডাউনে আপনার শিশুরাও বিভিন্ন আনন্দদায়ক এবং শিক্ষামূলক মুভি বা অনুষ্ঠান দেখে আনন্দ পাবার পাশাপাশি বিভিন্ন নতুন নতুন জিনিস শিখতেও পারবে। কেননা শিশুদের উপযোগী বেশ কিছু অনুষ্ঠান রয়েছে এখানে। এছাড়াও Iflix-এ অ্যাকশন, হরর এবং কমেডিসহ বিভিন্ন মুভি ও সিরিজ রয়েছে।

মোবাইল অ্যাপের মাধ্যমে এই সেবাটি উপভোগ করতে পারবেন। এছাড়াও আপনার পছন্দের কন্টেন্ট ডাউনলোড করে রাখার মাধ্যমে অফলাইনেও উপভোগ করতে পারেন। তবে ব্রাউজার থেকেও www.iflix.com ওয়েবসাইটে গিয়েও সেবাটি উপভোগ করা যাবে।

৩। হৈচৈ (Hoichoi)

লকডাইনে অসল সময় কাটসে? কি মুভি দেখবেন, বুঝে পাচ্ছেন না? তবে সাবস্ক্রাইব করুন ভারতের জনপ্রিয় ভিডিও স্ট্রিমিং চ্যানেল “হৈচৈ”-এ। হৈচৈ থেকে বিভিন্ন ওয়েব সিরিজ এবং মুভি প্রচার করা হয়। Hoichoi পেইড স্ট্রিমিং চ্যানেল হলেও এর কিছু কিছু কনটেন্ট ফ্রি দেখা যায়। তবে সব কনটেন্ট দেখতে হলে   সাবস্ক্রাইব করতে হবে। হৈচৈ-এর সাথে ঘরে বসে সময় কাটান নিশ্চিন্তে। 

৪। অ্যামাজন প্রাইম ভিডিও (Amazon Prime Video)

ঘরে বসে হোম অফিস করতে করতে আপনি কি বোরড? তবে হওয়ারই কথা। সারাদিন ঘরে বসে থাকতে কারই বা ভালো লাগে? তবে বর্তমান পরিস্থিতিতে ঘরে থাকাই আমাদের সকলের জন্য নিরাপদ। সেক্ষেত্রে বিনোদনের ব্যবস্থা আমাদের নিজেদেরই করতে হবে। ঘরমুখো এই জীবনে মুভি বা সিরিজ দেখতে পারেন বর্তমান স্ট্রিমিং সেবা ‘অ্যামাজন প্রাইম ভিডিও’তে। এটি জনপ্রিয় ই-কমার্স প্ল্যাটফর্ম অ্যামাজনের স্ট্রিমিং সেবা। আন্তর্জাতিক ক্রেডিট কার্ড মাস্টার, ভিসা কার্ডের মাধ্যমে সাবস্ক্রাইব করেই বিভিন্ন মুভি, টিভি সিরিজ, টিভি চ্যানেলসহ বিভিন্ন অনুষ্ঠান দেখার সুবিধা পাবেন Amazon Prime Video-তে।

৫। ডিজনি প্লাস (Disney Plus)

আপনি কি একজন Disney Lover? তবে আপনার জন্য রয়েছে একটি সুখবর! ডিজনির সকল কার্টুন এবং মুভি এখন পাবেন এক ছাদের নিচে, ডিজনি প্লাসে। ডিজনির নিত্যনতুন সকল মুভি এবং সিরিজ পেয়ে যাবেন এ স্ট্রিমিং সাইটে। ডিজনি আমাদেরকে এক সুন্দর শৈশব উপহার দিয়েছে। এবং পরবর্তী প্রজন্মকেও এক সুন্দর শৈশব উপহার দিতেই এই আয়োজন। এতে শিশুদের জন্য রয়েছে মজার মজার বিভিন্ন মুভি।

ঘরে বসে থেকে থেকে শিশুরা বোর হয়ে যায়। বর্তমানে স্কুল বন্ধ, খেলার মাঠেও খেলতে যাওয়ার পরিস্থিতি নেই। এরকম সময় শিশুকে ঘরে নানা কাজে ব্যস্ত রাখা লাগে। এরকম পরিস্থিতিতে আপনার শিশু

 Disney Plus-এর সাথে দারুণ সময় কাটাতে পারবে। তবে, ডিজনি প্লাস যে কেবল শিশুরাই দেখতে পারবে, তা কিন্তু নয়! বড়দের জন্যও রয়েছে মজার মজার মুভি। আশা করি আপনার এবং আপনার শিশুর ভালো সময় কাটবে।

৬। বায়োস্কোপ (Bioscope)

“বায়োস্কোপের নেশা আমায় ছাড়ে না”! বায়োস্কোপের নেশায় পড়লে আপনাকে আর ছাড়বে না! গ্রামীণফোনের ভিডিও স্ট্রিমিং সেবা হচ্ছে ‘বায়োস্কোপ’। বায়োস্কোপে রয়েছে খেলা, চলচ্চিত্র, নাটক ও টিভি শো দেখার সুবিধা। লকডাউনে ঘরে বসেই Bioscope-এ আপনার পছন্দের নাটক বা চলচ্চিত্র দেখে পরিবারের সাথে সময় কাটাতে পারবেন।

। বাংলাফ্লিক্স (Banglaflix)

বাংলাফ্লিক্স বাংলালিংকের স্ট্রিমিং সেবা। যার মধ্যে লাইভ টিভি, মিউজিক ভিডিও, নাটক, পুরনো বাংলা সিনেমা ও ফ্যাশন নিয়ে বিভিন্ন ভিডিও কনটেন্ট পাওয়া যাবে। আপনার বাংলালিংক মোবাইল নম্বর দিয়েই খুব সহজে বাংলাফ্লিক্সে নিবন্ধন করতে পারবেন। প্রথম ৩০ দিন বিনা মূল্যে এ সেবা ব্যবহার করতে পারলেও, পরবর্তীতে সাবস্ক্রাইব করতে হবে। আপনি যদি বাংলালিংক গ্রাহক হয়ে থাকেন, তবে আপনার বাংলালিংক নম্বর থেকেই সরাসরি মোবাইলের ব্যালান্স থেকে Banglaflix-এ সাবস্ক্রাইব করতে পারবেন।

৮। হটস্টার (Hotstar)

আপনি কি লাইভ খেলা দেখতে পছন্দ করেন? তবে আপনি ঘরে বসেই হটস্টারে উপভোগ করতে পারেন লাইভ বিভিন্ন খেলা। হটস্টারে যে কেবল খেলাই দেখতে পাবেন, তা কিন্তু নয়! বিভিন্ন মুভি এবং টিভি সিরিজও রয়েছে হটস্টারের ভাণ্ডারে। বিনা মূল্যে এ সেবা গ্রহণ করা গেলেও, বিজ্ঞাপনের ঝামেলা এড়াতে আপনি চাইলে সাবস্ক্রাইব করে নিতে পারেন। তবে সেক্ষেত্রে আপনাকে আন্তর্জাতিক ক্রেডিট কার্ড, মাস্টার বা ভিসা কার্ডের মাধ্যমে Hotstar-এর এই সেবাটি কিনতে হবে।

। মুভ প্লে (Move Play)

আপনি কি হলিউড, বলিউড বা তামিল সিনেমার মস্ত বড় ফ্যান? তবে আপনার জন্য রয়েছে মুভ প্লে। এতে ক্রাইম, কমেডি, এনিমেশন এবং হররসহ বিভিন্ন মজার এবং চমৎকার মুভি রয়েছে। আপনি ওয়েবসাইটে গিয়ে এমনকি মোবাইল অ্যাপের মাধ্যমে মোবাইলেও স্ট্রিমিং করে দেখতে পারেন। আশা করি ঘরে বসে আপনার দারুণ সময় কাটবে Move Play-এর সাথে।

১০। পপকর্ন টাইম (Popcorn Time)

পপকর্ন খেতে খেতে মুভি এনজোয় করতে পারেন পপকর্ন টাইমে। কেননা পপকর্ন টাইমকে বলা হয়,  অনলাইন মুভি ও টিভি শোর ভাণ্ডার।  এই সেবাটি আপনি বিনামূল্যেই গ্রহণ করতে পারেন। পরিবারের সাথে চমৎকার সময় কাটাতে পারেন Popcorn Time-এর সাথে।

আশা করি এবারের লকডাউনে ঘরে বসে আপনার এবং আপনার পরিবারের দারুণ সময় কাটবে।

 

Leave A Comment

You must be logged in to post a comment